শরীরের শেষ বিন্দু রক্ত পর্যন্ত আমরা মাতৃভাষা রক্ষার্থে লড়াই চালিয়ে যাবো: আব্বাস সিদ্দিকী

শরীরের শেষ বিন্দু রক্ত পর্যন্ত আমরা মাতৃভাষা রক্ষার্থে লড়াই চালিয়ে যাবো: আব্বাস সিদ্দিকী

আরিফুল ইসলাম, বেঙ্গল রিপোর্ট: আজ ২১শে ফেব্রুয়ারী ইন্ডিয়ান সেক্যুলার ফ্রন্ট ( আই এস এস) উদ্যোগে টেকনোসিটি থানার অন্তর্গত বালিগুড়ি সিক্স লেনে আন্তজার্তিক মাতৃভাষা দিবস ও ভাষা রত্ন সম্মান প্রদান অনুষ্ঠান পালিত হলো।

২১ ফেব্রুয়ারি মাতৃ ভাষা দিবসে বক্তব্য রাখছেন পীরজাদা আব্বাস সিদ্দিকী সাহেব

শত বাধা বিপত্তি পেরিয়ে আজ অনুষ্ঠান শুরুতে, বাংলা ভাষার জন্য যে সমস্ত বাংলার বীর সন্তান শহীদ হয়েছিলেন তাঁদের স্মরন করে আব্বাস সিদ্দিকী বলেন, আজ অমর একুশে ফেব্রুয়ারি। আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস। রক্তস্নানের মধ্য দিয়ে ভাষার মর্যাদা প্রতিষ্ঠার দিন। সব বাধা অতিক্রম করে বাংলাকে পাথেয় করে এগিয়ে যাওয়ার শপথের দিন। বাংলা ভাষার মর্যাদা প্রতিষ্ঠার জন্য এদিন সালাম, বরকত, জব্বার, রফিকসহ অনেকে নিজেদের প্রান বিসর্জন দিয়েছিলেন।

এর পর তিনি বর্তমান সরকারকে উদ্দেশ্য করে বলেন, আন্তজার্তিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন অনুষ্ঠান করতে যেভাবে প্রশাসনকে কাজে লাগিয়ে আমাদের অনুষ্ঠানকে বাধা দিয়েছে সেটা কোন বাঙালিই মেনে নিতে পারেনা। আমাদের অনুষ্ঠানের অনুমতি দিয়েও তা প্রত্যাখ্যান করছে প্রশাসন।
এই বাংলায় বাংলা ভাষা দিবস উদযাপন করবো তাতেও কেন বাধা?
স্বাধীনচেতা বাঙালির রক্তে রাঙা এই ২১শে ফেব্রুয়ারী কোন বাঙালি ভুলতে পারেনা। এবং আমি একজন স্বাধীনতা সংগ্রামীর পরিবারের সদস্য কি করে ভুলতে পারি?
পীরজাদা আব্বাস সিদ্দিকী সাহেব আরও বলেন, আমি প্রতিবছর আন্তজার্তিক মাতৃভাষা দিবস পালন করে থাকি কিন্তু একজন বাঙালি মুখ্যমন্ত্রীর আমলে আমরা বাঙালিরা এই অনুষ্ঠান পালন করতে পারছিনা? এটা গনতন্ত্রের লজ্জা এবং বাঙালির লজ্জা।
রাজ্য প্রশাসনের এই বাঙালী বিরোধী সিদ্ধান্তের তীব্র ভাষায় ধিক্কার জানাই।

সর্বোশেষে তিনি কেন্দ্র সরকারের বিরুদ্ধে কড়া ভাষায় হুঁশিয়ারী দিয়ে বলেন ভারতবর্ষ বহু ভাষাভাষির দেশ তাই জোর করে যদি কোন ভাষার উপর সরকার হিন্দি ভাষা চাপিয়ে দিয়ে এক দেশ ও এক ভাষা এই নীতি বাস্তবায়ন করতে চাই তাহলে আমরা এর বিরোধিতা করে বৃহত্তর আন্দোলনে ঝাঁপিয়ে পড়বো। আমাদের শরীরের এক ফোটা রক্তবিন্দু থাকা পর্যন্ত আমরা আমাদের মাতৃভাষা রক্ষার্থে লড়াই চালিয়ে যাবো।

উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন স্বাধীনতা সংগ্রামী পরিবারের সদস্য ও ইন্ডিয়ান সেক্যুলার ফ্রন্টের প্রধান পৃষ্টপোষক পীরজাদা মাওলানা আব্বাস সিদ্দিকী আল কোরাইশী সাহেব সহ দলের সভাপতি সিমুল সরেন, ভাইস প্রেসিডেন্ট হাজি ক‌ওসার আলি, দিলিপ নস্কর, নাসিরউদ্দিন মির, অধ্যাপক রেজমান মল্লিক, নিজামুদ্দিন, কুতুবউদ্দিন ফাতেহি, বিশ্বজিৎ দাস সহ থানা শাখা কমিটির নেতৃত্বরা।

Facebook Comments