আবারও বিপাকে ফেসবুক ইন্ডিয়া, দিল্লি হিংসার ঘটনায় দায়ী ফেসবুকও! এবার‌ সংস্থাকে তলব করল দিল্লি

আবারও বিপাকে ফেসবুক ইন্ডিয়া, দিল্লি হিংসার ঘটনায় দায়ী ফেসবুকও! এবার‌ সংস্থাকে তলব করল দিল্লি

বেঙ্গল রিপোর্ট ডিজিটাল ডেস্ক: আবারও বিপাকে ফেসবুক ইন্ডিয়া।দিল্লির ঘটনায় উসকানিমূলক এবং হিংসা–বিদ্বেষ ছড়াতে পারে এমন মন্তব্যকে নিজেদের প্ল্যাটফর্ম থেকে মুছে ফেলেনি ফেসবুক কর্তৃপক্ষ। এই অভিযোগের কারণেই সম্প্রতি দিল্লি বিধানসভার তরফে সমন পাঠানো হয়েছে ফেসবুক ইন্ডিয়ার ম্যানেজিং ডাইরেক্টর তথা ভাইস প্রেসিডেন্ট অজিত মোহনকে। আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর ফেসবুকের ওই শীর্ষ আধিকারিককে এই মামলায় জবাবদিহি করতে উপস্থিত থাকতেও বলেছে দিল্লি বিধানসভার শান্তি ও সম্প্রীতি কমিটি।

একটি দলের প্রতি পক্ষপাতিত্ব করছে বিশ্বের বৃহত্তম সোশ্যাল মিডিয়া সংস্থা ফেসবুক। এর আগে এমনই অভিযোগে রীতিমতো সাড়া পড়ে গিয়েছিল গোটা দেশে। এই অভিযোগের জবাব চেয়ে সম্প্রতি লোকসভার সংসদীয় কমিটির তরফে সমন পাঠানো হয়েছে ফেসবুক কর্তৃপক্ষকে।

এরই মাঝে এবার ফেসবুককে তলব করল দিল্লি বিধানসভা। বিধানসভার এই কমিটির অধ্যক্ষ “রাঘব চাড্ডা” এই প্রসঙ্গে সংবাদমাধ্যমকে জানান, দিল্লি হিংসার ঘটনায় ফেসবুকে যে উসকানি এবং হিংসামূলক মন্তব্য ছড়ানো হয়েছিল সেই ঘটনার তদন্ত করছে বিধানসভা। আর তাই ফেসবুক কর্তৃপক্ষকে জবাব দিহি করতে বলা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ‘‌‘‌দিল্লি হিংসার সময় ফেসবুকে যে ধরনের বিদ্বেষমূলক মন্তব্য ছড়ানো হয়েছিল, তাতে বিধানসভার কমিটি বেশ কয়েকজন প্রত্যক্ষদর্শীর বয়ান শুনেছে। তা শোনার পরই কমিটির মনে হয়েছে, এই ঘটনার জন্য ফেসবুক কর্তৃপক্ষও সমান দোষী। আর তাই তাদের মতামত শোনা এবং সমস্ত প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার জন্য এই সমন পাঠানো হয়েছে। জানা গিয়েছে, প্রত্যক্ষদর্শীদের তালিকায় বিখ্যাত লেখক পরাঞ্জয় গুহঠাকুরতা, ডিজিটাল রাইটস অ্যাক্টিভিস্ট নিখিল পাহাওয়ার মতো ব্যক্তিত্বরা রয়েছেন।

Facebook Comments