এবছর মোহনবাগান রত্নে ভূষিত হবেন গুরবক্স সিং ও পলাশ নন্দী বিশেষ পুরস্কার পাবেন বেইতিয়া

এবছর মোহনবাগান রত্নে ভূষিত হবেন গুরবক্স সিং ও পলাশ নন্দী বিশেষ পুরস্কার পাবেন বেইতিয়া

বেঙ্গল রিপোর্ট ডিজিটাল ডেস্ক: এবছর মোহনবাগান রত্নে ভূষিত হবেন গুরবক্স সিং ও পলাশ নন্দী বিশেষ পুরস্কার পাবেন বেইতিয়া। ভারতীয় ক্রীড়াজগতের দুই উজ্জ্বল তারকাকে মোহনবাগান রত্ন সম্মানে ভূষিত করা হবে। একজন হকির কিংবদন্তি গুরবক্স সিং এবং অন্যজন প্রাক্তন ক্রিকেটার পলাশ নন্দী

করোনা ভাইরাসে জেরে এখনও স্তব্ধ ময়দান। মাঠে গড়ায়নি বল। যতদিন যাচ্ছে, লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে সংক্রমণ। এমন পরিস্থিতিতে সদস্য-সমর্থকদের জন্য ক্লাবের গেট খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েও পিছিয়ে আসে মোহনবাগান। করোনা আবহে অন্যান্যবারের মতো করে এবছর আর মোহনবাগান দিবস উদযাপন করা হবে না। ফুটবলপ্রেমীদের সুরক্ষার কথা ভেবেই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে ক্লাব। তবে প্রতিবারের মতোও এবারও মোহনবাগান রত্নে সম্মানিত করা হবে কিংবদন্তিদের। সোমবারই ক্লাবের তরফে সেই তালিকা প্রকাশ করা হল।

এদিন ক্লাবের এক্সিকিউটিভ কমিটি সিদ্ধান্ত নিয়েছে, এবার ভারতীয় ক্রীড়াজগতের দুই উজ্জ্বল তারকাকে মোহনবাগান রত্ন সম্মানে ভূষিত করা হবে। একজন হকির কিংবদন্তি গুরবক্স সিং এবং অন্যজন প্রাক্তন ক্রিকেটার পলাশ নন্দী। অলিম্পিকে জোড়া পদক এবং ১৯৬৬ সালের এশিয়ান গেমসে সোনা জিতেছিলেন গুরবক্স সিং। আর বাংলার ক্রিকেটকে গৌরবান্বিত করেছিলেন পলাশ নন্দী। দুই কিংবদন্তিকে সম্মানিত করতে পারায় গর্বিত মোহন কর্তারা।

২৯ জুলাই মানেই মোহনবাগান সমর্থকদের কাছে আবেগের দিন। অমর একাদশের বীরত্বকে স্মরণ করে গর্ব করার দিন। বরাবরই এই দিনটায় সবুজ-মেরুন ক্লাব তথা সদস্য-সমর্থকরা ইতিহাসের পাতায় ডুব দেন। তবে এবার এই দিনটার গুরুত্ব ছিল আরও অন্যরকম। কারণ আইএসএলের দল এটিকের সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধার পর এবারই ছিল প্রথম মোহনবাগান দিবস। অধীর আগ্রহে অপেক্ষায় ছিলেন এটিকে কর্ণধার সঞ্জীব গোয়েঙ্কাও। কিন্তু মহামারী করোনা ভাইরাসের কারণে জমকালো অনুষ্ঠান এবার আর হচ্ছে না। তবে শরীর চর্চার আয়োজনের মধ্যে দিয়েই উপযাপিত হবে এই দিনটি।

একনজরে কে কী পুরস্কার পাচ্ছেন:

মোহনবাগান রত্ন: গুরবক্স সিং (হকি) ও পলাশ নন্দী (ক্রিকেট)।
আজীবন স্বীকৃতি পুরস্কার: মনোরঞ্জন পোরেল (অ্যাথলিট)। অশোক কুমার (হকি) এবং প্রণব গঙ্গোপাধ্যায় (ফুটবল)। সেরা সিনিয়র ফুটবলার: জোসেবা বেইতিয়া। সেরা যুব ফুটবলার (অনূর্ধ্ব-১৮): সজল বাগ।

Facebook Comments