কুমুদ সাহিত্য মেলায়  সংবর্ধিত ১১ জন গুণীজন

কুমুদ সাহিত্য মেলায়  সংবর্ধিত ১১ জন গুণীজন

নিজস্ব সংবাদদাতা, বেঙ্গল রিপোর্ট, মঙ্গলকোট : ‘বাড়ী আমার ভাঙন ধরা অজয় নদের বাঁকে, জল সেখানে সোহাগ করে স্থল কে ঘিরে রাখে “। এই কবিতার সাথে প্রত্যেকেই কম বেশি পরিচিত। হ্যা পল্লিকবি কুমুদরঞ্জন মল্লিকের বসতভিটায় কুমুদ সাহিত্য মেলা আয়োজিত হল রবিবার সারাদিনব্যাপি।এ বছর ‘কুমুদ সাহিত্য রত্ন’ সম্মান পেলেন বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন ভারপ্রাপ্ত  উপাচার্য তথা অধ্যাপিকা সবুজকলি সেন মহাশয়া। তিনি কুমুদ সাহিত্য মেলার মঞ্চে সম্মান পেয়ে আপ্লুত হয়ে বলেন – ” এই মঙ্গলকোটের চাণকে আমার মামার বাড়ী, তাই পল্লিকবি কুমুদরঞ্জন মল্লিকের কাব্যিক দর্শন আজও আমায় অনুপ্রাণিত করে থাকে “।

তিনি সাম্প্রতিক সময়ে শান্তিনিকেতনে সমাবর্তন অনুষ্ঠানে বিশ্বভারতীর ‘আচার্য’ তথা প্রধানমন্ত্রী  নরেন্দ্র মোদী, ‘দেশীকোত্তম’ প্রাপক তথা বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী সেখ হাসিনা কে এনে যে দুই দেশের বাংলা সাহিত্যের  মেলবন্ধন ঘটিয়েছেন। সেজন্য এবছর তাঁকে কুমুদ সাহিত্য রত্ন সম্মান দেওয়া হল বলে জানিয়েছেন কমিটির সম্পাদক মোল্লা জসিমউদ্দিন।ভূমিপুত্র বৈষ্ণব কবি লোচনদাস স্মরণে ‘লোচনদাস রত্ন’ সম্মান জানানো হয় বাউল স্বপন দত্ত মহাশয় কে। বর্ধমান বইমেলার প্রতিস্টাতা সমীরণ চৌধুরী স্মরণে ‘সমীরণ রত্ন’ সম্মান জানানো হয় গাছ মাস্টার খ্যাত শিক্ষক অরুপ কুমার চৌধুরী মহাশয়কে।

দেখুন ভিডিও

তিনি স্কুলে স্কুলে গাছ লাগিয়ে রাজ্য সরকার ও কেন্দ্রীয় সরকারের শিক্ষক হিসাবে সম্মান পেয়েছেন। আজ তিনি কবির বসতভিটায় এক চারাগাছ রোপণ করেন। কলকাতা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের শিক্ষক ও চিকিৎসক ডক্টর সৌমিক ঘোষ কে ‘বর্ধমান রত্ন’ সম্মান তুলে দেওয়া হয়। তিনি  সারাদেশে বয়স্ক ব্যক্তিদের স্বাস্থ্য সচেতনতা নিয়ে কাজ করে চলেছেন এবং সেইসাথে পেটের ক্যান্সার চিকিৎসায় সরকারী হাসপাতালে সুনাম অর্জন করেছেন।

এদিন তিনি তাঁর পিতামহ তথা স্বাধীনতা সংগ্রামী এবং বৃটিশ আমলের প্রথম গ্যাজুয়েট ডাক্তার  রুদ্রনাথ ঘোষ স্মরণে মাধ্যমিক ও উউচ্চমাধ্যমিক দুস্থ কৃতিদের হাজার টাকা করে অনুদান দেন। চৈতন্যভূমি ‘নবদ্বীপ রত্ন’ সম্মান পেলেন কবি ও সাংবাদিক শ্যামল রায়। পল্লিকবি কুমুদরঞ্জন মল্লিকের নিকটাত্মীয় তথা গল্পকার শুভাশিস মল্লিক কে ‘মেমারি রত্ন’ সম্মান জানানো হয়। প্রাথমিক থেকে স্নাতক শিক্ষাক্রম অবধি পড়ুয়াদের সুশিক্ষা দেওয়া অরুপ মজুমদার ও রুমা মজুমদার দম্পতি কে ‘হুগলী রত্ন’  সম্মান জানানো হয়। বিশিস্ট সঙ্গীত শিল্পী পলাশ হাজরা কে ‘মঙ্গলকোট রত্ন’ সম্মান দেওয়া হয়। প্রয়াত বিচারক মহম্মদ নুরুল হোদা মোল্লা স্মরণে ‘নুরুল হোদা রত্ন’ সংবর্ধনা দেওয়া হয় মঙ্গলকোটের প্রখ্যাত চক্ষু বিশেষজ্ঞ মহম্মদ বদরুদ্দোজা ওরফে সেলিম ডাক্তার মহাশয়কে  ।

প্রয়াত প্রত্নবিদ কেশব বন্দ্যোপাধ্যায় স্মরণে ‘কেশব রত্ন’ কবি রামদুলাল বৈরাগ্য এবং প্রয়াত পত্রিকা সম্পাদক সমীর ভট্টাচার্য স্মরণে ‘সমীররত্ন’ সম্মান জানানো হয় সাংবাদিক সুজিত দত্ত মহাশয় কে। এদিন কুমুদ সাহিত্য মেলাতে বিখ্যাত লোকসঙ্গীত শিল্পী রফিকুল ইসলাম মেলা নিয়ে স্বরচিত গান শোনান এবং বেশকিছু গান পরিবেশন করেন। যা মঞ্চের সামনে তিনশো কবি সাহিত্যিকদের মুগ্ধ করে তোলে। এই সাহিত্য আসরে প্রাক্তন ডেপুটি ম্যাজিস্ট্রেট মহম্মদ ইব্রাহিম, বিকাশ ভবনের শিক্ষা সেলে আইন আধিকারিক প্রসেনজিৎ রায় প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। পুরো অনুস্টান সঞ্চালনায় ধনঞ্জয় বন্দ্যোপাধ্যায়, খায়রুল আনাম, সৈয়দ আজাহার আলী, শ্যামলাল মকদমপুরী ছিলেন  ।

উদ্যোক্তাদের পক্ষে কুমুদ সাহিত্য মেলা কমিটির সম্পাদক মোল্লা জসিমউদ্দিন বলেন – প্রতিবছর ৩ রা মার্চ মঙ্গলকোটের কোগ্রামে পল্লিকবি কুমুদরঞ্জন মল্লিকের বসতভিটায়  কবি সাহিত্যিকদের আগমনে জন্মদিন পালিত হয়।

Facebook Comments