উইঘুর মুসলিমদের চীনের হাতে তুলে দেবে না, জানিয়ে দিল মালয়েশিয়া

উইঘুর মুসলিমদের চীনের হাতে তুলে দেবে না, জানিয়ে দিল মালয়েশিয়া

বেঙ্গল রিপোর্ট ডেস্ক: উইঘুর মুসলিমদের চীনের হাতে হস্তান্তরের অনুরোধ গ্রহণ করবে না মালয়েশিয়া। প্রয়োজনে তৃতীয় একটি দেশে নির্যাতিতদের নিরাপদ আবাসের ব্যবস্থা করবে দেশটি। জানিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী বিভাগের একজন মন্ত্রী। খবর রয়টার্সের।

মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী দপ্তরের মন্ত্রী মুহিত রিদজুয়ান মুহাম্মদ ইউসুফ দেশটির আইনসভার ওয়েবসাইটে এই মন্তব্য করেন। তবে ঠিক কখন এই মন্তব্যটি করা হয়েছে সেই বিষয়ে নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

ওই ওয়েবসাইটে মুহিত লিখেন, ‘যেসব উইঘুর চীন থেকে মালয়েশিয়ায় পালিয়ে এসেছে বাঁচার জন্য, তাদের মালয়েশিয়া চীনের কাছে হস্তান্তর করবে না। এমনকি চীন অনুরোধ করলেও না। নিজ দেশে জীবনের শঙ্কা থাকায় উইঘুররা চাইলে তৃতীয় একটি দেশে যেতে পারে।’
মালয়েশিয়া সরকার এই প্রথম সরাসরি উইঘুর মুসলিমদের চীনের কাছে ফেরত দেবে না বলে জানিয়েছে।

গত ২০১৮ সালের অক্টোবরে চীনা সরকারের অনুরোধ উপেক্ষা করে উইঘুর মুসলিমদের চীনে না পাঠিয়ে তুরস্কে পাঠায় মালয়েশিয়া। যদিও চীন এই উদ্যোগের কঠোর বিরোধিতা করেছিল এবং সেই সময় মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ বলেছিলেন যাদেরকে তুরস্কে পাঠানো হয়েছে তারা ‘খারাপ কিছুই করেনি’।

পরবর্তী সময়ে মাহাথির বলেন, ‘মালয়েশিয়া চীনের তুলনায় অনেক ছোট। তাই এই বিষয়টি নিয়ে আমরা তাদের মোকাবেলা করতে চাই না।’

জাতিসংঘ বলছে, জঙ্গিবাদ দমন ও দক্ষতা বাড়ানোর জন্য ‘কারিগরি শিক্ষা কেন্দ্র’ নামে ১০ লাখেরও বেশি উইঘুর এবং অন্যান্য মুসলিমকে বন্দি করেছে চীন।

Facebook Comments