হুগলি রিভার ব্রিজ কমিশনের চেয়ারম্যান পদ থেকে ইস্তফা দিলেন শুভেন্দু অধিকারী

হুগলি রিভার ব্রিজ কমিশনের চেয়ারম্যান পদ থেকে ইস্তফা দিলেন শুভেন্দু অধিকারী

সুব্রত গুহ, বেঙ্গল রিপোর্ট, পূর্ব মেদিনীপুর: বিগত কয়েকমাস ধরে রাজনৈতিক টালবাহানা চলার মধ্যেই বৃহস্পতিবার হুগলি রিভার ব্রিজ কমিশনের চেয়ারম্যান পদ থেকে পদত্যাগ করলেন রাজ্যের পরিবহন মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী।

বৃহস্পতিবার ইস্তফা দেন তিনি। সেই ইস্তাফা দেওয়ার সাথে সাথে পরিবর্তে এইচআরবিসির নতুন চেয়ারম্যান হয়েছেন হিসাবে শ্রীরামপুরের সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়কে নিযুক্ত করে রাজ্য সরকার। ফলে এক দুই দিনের মধ্যে অন্য পদ গুলি তিনি ছাড়তে পারেন বলে জোর জল্পনা শুরু হয়েছে রাজ্য জুড়ে।

মঙ্গলবার খেজুরিতে হার্মাদ মুক্তি দিবস উপলক্ষে পথসভাতে বাক স্বাধীনতার কথা বললেও সরাসরি কোনও রাজনৈতিক মন্তব্য করেননি পরিবহণ মন্ত্রী। প্রসঙ্গত ২০১০ সালের ২৪ নভেম্বর খেজুরি থেকে সিপিএমকে বিতাড়িত করার দিনটি হার্মাদ মুক্তি দিবস হিসেবে প্রতি বছর পালন করা হয় তৃণমূলের পক্ষ থেকে। তবে এবার তৃনমূলের কোন পতাকা ব্যানার ছিলোনা সেই কর্মসূচীতে।

শুভেন্দুকে নিয়ে তরজার মধ্যে তৃণমূল নেতা সৌগত রায়ও বলেছিলেন, ‘দল সবাইকে নিয়ে ঐক্যবদ্ধ লড়াই করতে চায়। শুভেন্দু তৃণমূলে রয়েছে। তিনি গতকালও পরিবহণ দপ্তরে ছিলেন।’তার মধ্যেই এই ইস্তাফা চাঞ্চল্য বাড়িয়েছে।যদিও শুভেন্দু অধিকারী কেন এই ইস্তফা দিয়েছেন তার কারণ এখনো জানা যায়নি।

রাজনৈতিক মহলে গুঞ্জন বাড়লো কারন সম্প্রতি শ্রীরামপুরের সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়কেই সংবাদ মাধ্যমে শুভেন্দু অধিকারীর বিরুদ্ধে বলতে শোনা গেছিলো। এবার সেই কল্যানকেই এইচআরবিসির নতুন চেয়ারম্যান নিযুক্ত করায় আলোড়ন পড়েছে। তবে কি সত্যি সত্যিই কয়েক দিনের মধ্যে রাজ্যের পরিবহন মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী দল ছাড়তে চলেছেন সেই আলোচনা চরম আকার ধারন করেছে রাজনৈতিক মহলে।

Facebook Comments